অর্ধেক পৃথিবী করোনায় আক্রান্ত

নভেল করোনাভাইরাসে কাপছে বিশ্ব। বিশ্বের দুই শতাধিক দেশের মধ্যে ১১১টিতে ছোঁবল মারছে করোনাভাইরাস। আক্রান্ত হচ্ছে নতুন নতুন দেশ। সতর্কতা হিসেবে অনেক দেশের দুয়ার পর্যটকদের জন্য বন্ধ। আবার অনেকেই নিজ দেশেই অবরুদ্ধ। বাড়ছে মৃত্যুর মিছিলও। সবশেষ ১০ মার্চ পর্যন্ত মৃত্যুকোলে ঢলে পড়েছে ৪ হাজার ২৯৬ জন।

আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম সূত্রে জানা গেছে, বিশ্বজুড়ে আক্রান্ত ১ লাখ ১৯ হাজারের বেশি। চীনে যাত্রা শুরু হলেও সেখানে কমে এসেছে সংক্রমণে মৃত্যুর সংখ্যা। বর্তমানে ৯৯ শতাংশ মৃত্যুই চীনের বাইরে।

অবরুদ্ধ দেশ: করোনাভাইরাসে ইতালি কার্যত অবরুদ্ধ হয়ে পড়েছে। প্রতি বছর দেশটিতে ৬ কোটি ২০ লাখ মানুষ ভ্রমণ করায় অর্থনীতিতে পর্যটন খাতের অবদানই ছিল ১৩ শতাংশ। এখন দেশটি কার্যত অবরুদ্ধ। কোন পর্যটককে ঢুকতে দেওয়া হচ্ছে না। মালদ্বীপ, থাইল্যান্ড, ভারতের কয়েকটি রাজ্য, ভ্যাটিকেন সিটিসহ বেশ কয়েকটি দেশে পর্যটকদের যাতায়াত বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। তা ছাড়া সাইপ্রাসে দু’জন আক্রান্ত্রের মাধ্যমে পুরো ইউরোপে ছড়িয়ে পড়লো ভাইরাসটি।

কোন দেশে কত আক্রান্ত মৃত্যু : সিএনএন জানায়, করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের মধ্যে চীন ও ইতালির পরই বেশি নাজুক অবস্থায় ইরান। ৯ মার্চ পর্যন্ত আক্রান্ত্রের সংখ্যা বেড়ে দাঁয়িছে ৮ হাজার ৪২ জনে। পর্যন্ত ২৯১ জনের মৃত্যু হয়েছে। ইতালিতে করোনাভাইরাসের সংক্রমণে আরও ১৬৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। ৯ মার্চ পর্যন্ত ৯৭ জনের মৃত্যুর খবর জানিয়েছিল কর্তৃপক্ষ। নতুন হিসেবে করোনায় ইতালিতে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়াল ৬৩১ জনে। চীনে ৮০,৭৫৪ জন আক্রান্ত ও ৩১৩৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। চীনের বাইরে ৩২,২৫৫ জন আক্রান্ত ও ৮৮২ জনের মৃত্যু হয়েছে। বিশ্বজুড়ে ১ লাখ ১৯ হাজার জন আক্রান্ত ও ৪২৯৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। তা ছাড়া ইতালিতে ৪৬৩ জন, ইরানে ২৩৭ জন, দক্ষিণ কোরিয়ায় ৫৪, ফ্রান্সে ৩০, স্পেনে ২৮, যুক্তরাষ্ট্রে ২৬, জাপানে ১৬, ইরাকে ৭, যুক্তরাজ্যে ৫, হংকংয়ে ৩, অস্ট্রেলিয়ায় ৩, জার্মানিতে ২, ফিলিপিন্সে ১, সুইজারল্যান্ডে ১, নেদারল্যান্ডসে ১, আর্জেন্টিনায় ১, মিশরে ১, তাইওয়ানে ১, থাইল্যান্ডে ১, কানাডায় ১ জনের মৃত্যু হয়েছে।

ভৈরবে তিনদিনে ৩৪ জন হোম কোয়ারেন্টাইনে: করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হতে পারে সন্দেহে কিশোরগঞ্জের ভৈরবে বুধবার পর্যন্ত তিনদিনে মোট ৩৪ জনকে ‘হোম কোয়ারেন্টাইনে’ রাখা হয়েছে। তাদের মধ্যে ৩২ জন পুরুষ, ২ জন নারী। তাঁরা সবাই বিদেশফেরত। পৌর ও ইউনিয়ন স্বাস্থ্য সহকারীরা হোম কোয়ারেন্টাইনের প্রধান পর্যবেক্ষক হিসেবে নেতৃত্ব দিচ্ছেন।

করোনার কারণে করোনাভাইরাসের ওপর সম্মেলন বাতিল: যুক্তরাষ্ট্রে করোনার প্রাদুর্ভাব বৃদ্ধি পাওয়ায় করোনাভাইরাসের ওপর অনুষ্ঠিতব্য একটি সম্মেলন বাতিল করা হয়েছে। নিউইয়র্কে কাউন্সিল অন ফরেন রিলেশনসের (সিএফআর) আয়োজনে আয়োজিত ‘ডুয়িং বিজনেস আন্ডার করোনাভাইরাস’ শিরোনামের সম্মেলনটি শুক্রবার অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল। এছাড়াও ১১ মার্চ থেকে ৩ এপ্রিল পর্যন্ত সিএফআর আয়োজিত যুক্তরাষ্ট্রের জাতীয় অনুষ্ঠানসহ নিউইয়র্ক এবং ওয়াশিংটনের গোলটেবিল অনুষ্ঠান বাতিল করা হয়েছে।

প্রধানমন্ত্রীর জাপান সফর স্থগিত: নভেল করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের কারণে উদ্ভূত পরিস্থিতিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জাপান সফর স্থগিত করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী এ কে আব্দুল মোমেন। ১০ মার্চ তিনি সাংবাদিকদের বলেন, “প্রধানমন্ত্রীর জাপানে যাওয়ার কথা ছিল। জাপানের রাজার সঙ্গেও সাক্ষাতের ব্যবস্থা হয়েছিল। কিন্তু যেহেতু জাপানেও করোনাভাইরাস বেশ সোচ্চার হয়েছে, সেহেতু সফর স্থগিত করা হয়েছে। দুই দিনের দ্বিপক্ষীয় সফরে আগামী ৩০ মার্চ জাপানে যাওয়ার কথা ছিল। পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, “আমরা সিদ্ধান্ত নিয়ে এটা পরবর্তীতে কোনো এক সময়ে (জাপান সফরে) যাব। তাতে তাদের কোনো আপত্তি নাই।”

বার্তা সংস্থা এএফপির প্রতিবেদনে জানানো হয়, চীনের হুবেই প্রদেশের রাজধানী উহানে করোনাভাইরাসের সূত্রপাত হয়েছিল। ১০ মার্চ সেখানে পৌঁছান চীনা প্রেসিডেন্ট সি চিন পিং। চীন কর্তৃপক্ষ বলছে, দেশটিতে ভয়াবহ পরিস্থিতির ধীরে ধীরে উন্নতি হচ্ছে প্রেসিডেন্টের সফর তারই বহিঃপ্রকাশ। গত জানুয়ারির শেষ দিক থেকে শহরটি কার্যত পুরো দেশ থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে আছে। দুই সপ্তাহ ধরে এখানে সংক্রমণের হার কমতে শুরু করেছে।

আশার আলো: আশার আলো হচ্ছে আক্রান্ত্রদের মধ্যে ৫৫ শতাংশই সুস্থ হয়ে উঠেছেন। বাংলাদেশে নভেল করোনাভাইরাসে আক্রান্ত তিনজনের মধ্যে দুজন সুস্থ হয়ে উঠেছেন বলে জানিয়েছেন আইইডিসিআরের পরিচালক অধ্যাপক মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা। বুধবার এক ব্রিফিংয়ে তিনি বলেন, আমরা যে পরীক্ষা করেছি তাতে তিনজনের মধ্যে দুজনের রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে। আপনারা জানেন যে পর পর দুবার নেগেটিভ এলে আমরা তাদের ডিসচার্জ করে দিতে পারি। তো তিনজনের মধ্যে দুজন অলরেডি নেগেটিভ।

সেরে উঠতে লাগতে পারেছয় সপ্তাহ’: কেউ নভেল করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হলে পুরোপুরি সেরে উঠতে ছয় সপ্তাহের মত সময় লাগতে পারে বলে ধারণা দিয়েছেন বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার জরুরি স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের নির্বাহী পরিচালক ডা. মাইক রায়ান। সোমবার এক ব্রিফিংয়ে তিনি বলেছেন, যাদের মধ্যে সংক্রমণের মাত্রা বেশি, তাদের সেরে ওঠার জন্য কয়েক মাসও সময় লেগে যেতে পারে। নভেল করোনাভাইরাসের চিকিৎসায় এখন পর্যন্ত নির্দিষ্ট কোনো ওষুধ ডাক্তারদের জানা নেই। এ ভাইরাসের সংক্রমণে যে উপসর্গগুলো দেখা দেয়, মূলত সেগুলোর চিকিৎসাই তারা দিচ্ছেন।

বিমানবন্দর নৌবন্দরে স্ক্যানার মেশিন: করোনাভাইরাস প্রতিরোধে দেশের তিনটি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর, সমুদ্রবন্দর ও স্থলবন্দরে পাঁচটি থার্মাল স্ক্যানার বসানোর কথা বলেছিল স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। তবে বেনাপোল স্থলবন্দর ও চট্টগ্রাম শাহ আমানত আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর ছাড়া দুটি আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের জন্য নতুন কোনো থার্মাল স্ক্যানার আসেনি। তাই তিন বিমানবন্দরে কোনো থার্মাল স্ক্যানার বসেনি। শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে সাধারণ যাত্রীদের জন্য ব্যবহৃত একটি স্ক্যানার গত সোমবার রাতে নষ্ট হয়ে গেছে। তবে শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ভিআইপি যাত্রীদের জন্য বসানো স্ক্যানারটি সচল আছে। বর্তমানে বিদেশফেরত সাধারণ যাত্রীদের হ্যান্ডহেল্ড থার্মোমিটার দিয়ে স্বাস্থ্য পরীক্ষা করা হচ্ছে।

কাবা ঘরেও জীবানুনাশক মেশিন: করোনাভাইরাস প্রতিরোধে মক্কার পবিত্র মসজিদুল হারামের (কাবা ঘর) স্কেলেটরে (চলন্ত সিড়ি) গত ৯ মার্চ জীবানুনাশক অত্যাধুনিক মেশিন স্থাপন করা হয়েছে। হারামাইন শরিফাইন পরিচালনা কর্তৃপক্ষের প্রধান ইমাম শায়খ আব্দুর রহমান সুদাইস জীবানুনাশক ‘উদ্ভাবনী যন্ত্র’ স্কেলেটরে পরীক্ষামূলক স্থাপন কার্যক্রম পরিদর্শন করেন। ডিভাইসগুলো স্বয়ংক্রিয়ভাবে ৯৪ ভাগ জীবানু ধ্বংস করতে সক্ষম বলে জানা গেছে।

বাংলাদেশে ১৩ হটলাইন: করোনাভাইরাসের রোগী ধরা পড়ার পর ফোন কলের সংখ্যা বেড়ে যাওয়ায় হটলাইন নম্বর চারটি থেকে বাড়িয়ে ১৩টি করা হয়েছে। যে কোনো তথ্য পেতে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের ১৩টি নম্বর সচল থাকবে। নম্বরগুলো হচ্ছে- ১৬২৬৩, ০১৪০১১৮৪৫৫১, ০১৪০১১৮৪৫৫৪, ০১৪০১১৮৪৫৫৫, ০১৪০১১৮৪৫৫৬, ০১৪০১১৮৪৫৫৯, ০১৪০১১৮৪৫৬০, ০১৪০১১৮৪৫৬৩, ০১৪০১১৮৪৫৬৮, ০১৯২৭৭১১৭৮৪, ০১৯২৭৭১১৭৮৫, ০১৯৩৭০০০০১১, ০১৯৩৭১১০০১১।

Please follow and like us:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন

Raytahost Facebook Sharing Powered By : Raytahost.com