দুবাই বেড়াতে গেলে এই ৬ কাজ ভুলেও করবেন না

ঘুরে বেড়াতে ভালোবাসেন এমন যে কারও কাছে অন্যতম আকর্ষণীয় দেশ হলো দুবাই। তবে সব দেশের নিয়ম-কানুন তো আর এক নয়। আপনার দেশে যেসব বিষয় বা আচার-আচরণ স্বাভাবিক, কোনো কোনো দেশে সেগুলোই হয়তো দণ্ডনীয় অপরাধ! ধরুন আপনি দুবাই বেড়াতে গেলেন, কিন্তু সেখানে এমন কিছু কাজ আপনি করতে পারবেন না, যেগুলো আপনার হিসেবে খুবই সাধারণ। চলুন জেনে নেওয়া যাক দুবাই বেড়াতে গেলে কোন ৬টি কাজ করবেন না-

বাঁ হাত ব্যবহার করবেন না

দুবাইয়ে বেড়াতে গেলে আপনাকে হাত ব্যবহারের ক্ষেত্রে সতর্ক থাকতে হবে। যাই করুন না কেন, বাঁ হাত ব্যবহার করতে যাবেন না। যেমন ধরুন, খাবার খাওয়ার সময়, কাউকে অভ্যর্থনা জানানোর সময়, দরজা খুলতে গিয়ে, কাউকে কিছু দেওয়ার সময়, কাউকে শুভেচ্ছা জানানোর সময় বাঁ হাত ব্যবহার করবেন না। দুবাইতে বাঁ হাত ব্যবহারকে অসম্মানজনক মনে করা হয়। আমাদের দেশের মতো টয়লেট, টয়লেট পেপার, ফ্লাশিং ইত্যাদির ক্ষেত্রে দুবাইতেও বাঁ হাত ব্যবহার করা হয়। সুতরাং বুঝতেই পারছেন।

জনসমক্ষে ঘনিষ্ঠ হবেন না

দুবাই যথেষ্ট রক্ষণশীল দেশ। সেখানে জনসমক্ষে ঘনিষ্ঠভাবে হাত ধরা, আলিঙ্গন এবং চুম্বন করা সামাজিকভাবে গ্রহণযোগ্য নয়। এ ধরনের কাজ করলে আপনাকে জেলেও যেতে হতে পারে! অনেক বিদেশি এক্ষেত্রে না জেনে ভুগে থাকেন। পথেঘাটে খুব একটা ক্যাজুয়াল হওয়ারও চেষ্টা করবেন না। দুবাইতে উচ্চস্বরে গান করা বা বাজনা বাজানো, প্রকাশ্যে নাচ, অযথা চেঁচামেচি, অতিরিক্ত ঘনিষ্ঠতা ভালোভাবে গ্রহণ করা হয় না।

খোলামেলা পোশাক পরবেন না

দুবাইয়ের বাজার, শপিং মল, সমুদ্র সৈকত, থিয়েটার, মসজিদ ইত্যাদি সব পাবলিক এলাকায় নারীদের পরতে হবে শালীন পোশাক। দুবাই ফ্যাশনেবল পোশাকের কেন্দ্র হলেও সেখানে ছোট, আঁটসাঁট, শরীরের অংশ বের করে রাখা পোশাক পরার অনুমতি নেই। ঢিলেঢালা ও শালীন পোশাক পরবেন। সেখানকার গরম এবং শুষ্ক আবহাওয়ায় এ জাতীয় পোশাক আরামদায়ক। নারীরা ওড়না বা স্কার্ফ ব্যবহার করলে বেশি ভালো।

জনসমক্ষে কটূক্তি করবেন না

ভাষার ব্যবহারে সতর্ক থাকতে হবে। বিশেষ করে জনসমক্ষে বা স্থানীয়দের সঙ্গে কথা বলার সময় অশ্লীল ভাষার ব্যবহার করা যাবে না। দুবাইয়ে বেড়ানোর সময় সব ধরনের কটু কথা দূরে রাখুন। ইসলাম বা মুসলমানদের প্রতি অবমাননাকর কোনো মন্তব্য করা থেকে বিরত থাকুন। দুবাইতে এটি একটি শাস্তিযোগ্য অপরাধ হিসেবে বিবেচিত হয়।

অনুমতি ছাড়া ছবি তুলবেন না

দুবাইয়ে বেড়াতে গিয়ে গিয়ে কারও অনুমতি ছাড়া ছবি তুলতে যাবেন না। সেখানকার প্রাকৃতিক এবং নাগরিক সৌন্দর্য ছবি তোলার জন্য আপনাকে প্রলুব্ধ করতে পারে। তবে ক্লিক করার আগে অবশ্যই আপনাকে অনুমতি নিয়ে নিতে হবে। এ ব্যাপারে ট্যুর গাইডদের জিজ্ঞেস করতে পারেন।

সব ওষুধ নিতে পারবেন না

অত্যন্ত কঠোর অ্যান্টি-ড্রাগ নীতি রয়েছে সংযুক্ত আরব আমিরাতের। এর অর্থ দাঁড়ায়, কোন ওষুধ নিয়ে দুবাইতে যেতে পারবেন এবং কোনগুলো নিয়ে যেতে পারবেন না তার নিয়ম। সে দেশে অ্যান্টি অ্যাংজাইটি ওষুধও অনুমোদিত নয়। বিমানবন্দরে চেকিং এর সময় বাধা পেতে পারেন। নিয়ম ভঙ্গ করলে জেল হতে পারে চার বছর পর্যন্ত। অনুমোদিত ওষুধগুলি সম্পর্কে UAE-এর অফিশিয়াল ওয়েবসাইট দেখে নিন।

Please follow and like us:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন

আজকের দিন-তারিখ
  • শুক্রবার (সকাল ৭:০২)
  • ২১শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • ১৫ই জিলহজ, ১৪৪৫ হিজরি
  • ৭ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ (বর্ষাকাল)
Raytahost Facebook Sharing Powered By : Raytahost.com