অভিনেতা আরশের নামে জিডি করলেন অভিনেত্রী চমক

গত কয়েকদিন ধরেই ‘শ্বশুর বাড়িতে প্রথম দিন’ নাটকের শুটিং সেটে ঘটে যাওয়া অনাকাঙ্খিত কিছু ঘটনা নিয়ে বেশ তোলপাড় চলছে দেশের শোবিজ অঙ্গনে। 

ওই নাটকের অভিনেত্রী রুকাইয়া জাহান চমক তার সহশিল্পী আরশ খানের বিরুদ্ধে অনৈতিক সুবিধা চাওয়ার অভিযোগ তোলেন। অন্যদিকে অভিনেত্রীর বিরুদ্ধে দুর্ব্যবহারের অভিযোগ তোলেন নাটকটির নির্মাতা আদিব হাসান।

এরই মধ্যে সেদিনের ঘটনা নিয়ে গণমাধ্যমে কথা বলেন অভিনেতা মাসুম বাশার। ওইদিন শুটিং সেটে তিনিও উপস্থিত ছিলেন। এই অভিনেতার অভিযোগ, চমক পুরো ঘটনা নিয়েই মিথ্যা বলছেন।

বিষয়টি যখন ডিরেক্টরস গিল্ড ও অভিনয় শিল্পী সংঘের কাছে বিচারাধীন অবস্থায় রয়েছে, ঠিক তখনই অভিনেতা আরশ খান ও পরিচালক আদিব হাসানের বিরুদ্ধে উত্তরা পশ্চিম থানায় সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছেন চমক। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন এই অভিনেত্রী নিজেই। তবে বিস্তারিত কিছু বলতে চাননি তিনি।

এর আগে আরশের বিরুদ্ধে অভিযোগ করে চমক বলেন, ‘একসময় আরশ আমার খুব ভালো বন্ধু ছিল। তার সঙ্গে বেশ কিছু কাজও করেছি। কিন্তু এই বন্ধুত্বের আড়ালে আরশ আমার কাছে বেশি কিছু দাবি করে বসে। এর মধ্যে আমি ইন্ডাস্ট্রির বেশ কিছু নায়িকার কাছ থেকে তার চারিত্রিক বৈশিষ্ট্যের কথা জানতে পারি। জানার পর বন্ধুত্বের বেশি যে সম্পর্ক ও গড়তে চেয়েছিল তাতে আমি রাজি হইনি। এরপর আমি তাকে জানাই যদি সে এভাবে আমাকে এভাবে হ্যারাস করতে থাকে তাহলে আমি তার সঙ্গে আর কাজ করব না। প্রত্যুত্তরে আরশ আমাকে জানায়, সে আমার সঙ্গে প্রফেশনালি কাজ করবে, এ ধরনের কথা আর বলবে না।’

তিনি আরও বলেন, ‘আরশের সঙ্গে এরপর বেশ কিছু কাজের অফার আসে আমার কাছে। কিন্তু আমি তাতে রাজি হইনি। এতে আমার প্রতি তার ক্ষোভ তৈরি হয়। তার সঙ্গে সম্পর্কে না জড়ানোর ক্ষোভে আমাকে শুটিং সেটে অনাকাঙ্ক্ষিতভাবে টাচ করা হতো। ফোন করে বিরক্ত করা হতো। এ ঘটনার সঙ্গে নাটকের পরিচালক আদিব হাসানও জড়িত। আরশ ও আদিব পরস্পর খুব ভালো বন্ধু।’

যদিও অনৈতিক সুবিধা চাওয়ার অভিযোগের বিষয়ে আরশের ভাষ্য ‘আমাদের ভালো সম্পর্ক। তাকে আমার মায়ের শাড়ি দিয়েছি কস্টিউম হিসেবে। এ নাটকে একদিন শুটিং করে রাতে চমক আমাকে বাসায় পৌঁছে দিয়েছে। আগেও দিয়েছে। সে এখন উল্টাপাল্টা কথা বলছে। আমি নাকি তার কাছে বাড়তি সুবিধা চেয়েছিলাম। আমার নাকি ব্যক্তিগত সমস্যা আছে। আমি সুবিধা পাওয়ার জন্য এরকম করেছি। আমি যদি আসলেই তেমন হতাম, তাহলে আগেই স্বার্থ হাসিল করে শুটিং করতাম। সবই ঠিক ছিল, কিন্তু যখন মাসুম বাশার আঙ্কেল প্রসঙ্গে সবার সামনে মিথ্যা বলছিল, তখন সে চেয়েছিল তার সঙ্গে আমি যেন সায় দিই। না দেওয়ার কারণে সে আমাকে নিয়ে উল্টাপাল্টা কথা বলছে। তা ছাড়া শুটিংয়ের সেটে সে এর আগেও এমন অনেকের সঙ্গে খারাপ ব্যবহার করেছে। তার প্রমাণ আছে।’জানা গেছে, শুক্রবার (৪ আগস্ট) নাটকটির দ্বিতীয় দিনের শুটিং ছিল। কিন্তু সেটে সময়মতো না আসায় চমককে ফোন করলে রেগে যান তিনি। এসময় নির্মাতা আদিব হাসান তাকে বলেন, ‘আপনি যেভাবে রিঅ্যাক্ট করছেন, এ রকম কোনো ঘটনাই এখানে ঘটেনি। আপনি কেন তাদের ধমকাচ্ছেন?’ এসব কথা শোনার পর আরও বেশি উত্তেজিত হন চমক। নির্মাতাকে জানিয়ে দেন, তিনি আর শুটিং করবেন না। তাকে বোঝানোর চেষ্টা করেও ব্যর্থ হন।

এ সময় নির্মাতার সঙ্গে ছিলেন অভিনেতা মাসুম বাশার। এক পর্যায়ে পুলিশে খবর দেন চমক। কাঁদতে কাঁদতে তিনি অভিযোগ করেন, মাসুম বাশারসহ সেটের অনেকে তাকে মেরে ফেলার হুমকি দিয়েছেন।

বিষয়টি নিয়ে একটি সংবাদমাধ্যমকে আক্ষেপ করে মাসুম বাশার বলেন, ‘আমার জীবনে শুটিং সেটে এরকম ঘটনা কখনো ঘটেনি। মেয়েটি শুটিং সেটে কান্না আর চিৎকার করে আমার বিরুদ্ধে মিথ্যা কথা বলল, এটি আমার জন্য বড় অপমানের।’

এই অভিনেতা বলেন, ‘এ ধরণের আচারন আমার সঙ্গে আগে কেউ করেনি। মেয়েটি আমাকে নিয়ে যা বলছে সবই মিথ্যা। আমি নাকি তাকে মারতে যাচ্ছিলাম। সে যতগুলো কথা বলেছে সবই মিথ্যা। এখন দেখা যাক, অভিনয় শিল্পী সংঘ কি করে। আমার সংগঠনের প্রতি আস্থা আছে। আমি দেখেছি, আমাকে নিয়ে মিথ্যা ঘটনা ছড়ানো হচ্ছে, কিন্তু সংগঠন আমাকে বলেছে কথা না বলতে। আমি তাদের কথা শুনেছি।’

Please follow and like us:

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন

আজকের দিন-তারিখ
  • বুধবার (রাত ২:২৭)
  • ১৭ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ
  • ৮ই শাওয়াল, ১৪৪৫ হিজরি
  • ৪ঠা বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ (গ্রীষ্মকাল)
Raytahost Facebook Sharing Powered By : Raytahost.com